ভালোবাসার রোমান্টিক কবিতা অভিমানী

অভিমানী

জানালার এক পাশে দাড়িয়ে দেখি আকাশের ঐ চাঁদ,
ভালোবাসার আবীরে ঢাকা জ্যোস্নাভরা এ রাত।
অভিমানী চোখে যখন তাকাও আমার দিকে,
আলতো করে চোখের কোনে জলের ফোঁটা থাকে।

টানা চোখের বাঁকা চাহনি লাগছে তোমায় খুব,
রেগে যাওয়া কপালের ভাজ তারাও আজ চুপ।
মুখে তোমার একটু হাসি চোখে পানি রাশি রাশি,
ভাবছ তুমি বলবে আমায় দেখছ আমি ভালো আছি।

ভীরু ভীরু চোখের চাওয়া বলছে কত না বলা কথা,
বলতে গিয়ে কাঁপা স্বরে হঠাৎ করে চুপসে থাকা।
চুপটি করে জানালা দিয়ে চাঁদটাও দেয় যে উঁকি,
দেখছে তোমার অভিমানী মুখ ফোলানো চেহারা টি।

ক্ষমা করে দেওনা এবার ধরছি আমি কান,
চাঁদটাও ডাকছে মোদের ঝেরে ফেলো না অভিমান।
চোখটি এবার বাঁকা করে দেখছ আমায় ঠায়,
এ ছাড়া অন্য কিছু বলার তোমার নাই।

বলতে চাই ভালোবাসি তাইতো তোমার কাছে আসি।
রাগ- অভিমান ঝেরে ফেলো চাঁদের আলোয় ঘুরি চল।
ক্ষমা এবার করনা আমায়, ভুলতো তবু মানুষেরই হয়।
করবো না আর এমন কভু, মাফটা এবার কর না তবু।

Read More >>  প্রেমের কবিতা গল্প - বাধাহীন প্রেম

মুচকি হেসে আলতো করে চুপি স্বরে আমায় বলে,
মাফ করেছি এবার কভু এমন কাজ আর না কর।
এমন ভাবেই মিষ্টি করে অভিমানের শেষ হল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *